Sharing is caring!

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

 

নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ায় পরকীয়া প্রেমিকার দায়ের করা ধর্ষণ মামলায় আজমির হোসেন (৪৫) নামের এক ব্যক্তিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

 

গত ২৭ জানুয়ারী আজমিরের বিরুদ্ধে নোয়াখালীর আদালতে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছিলেন ওই নারী। শনিবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) রাতে তাকে গ্রেফতার করে হাতিয়া থানা পুলিশ।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আমির হোসেন এতথ্য নিশ্চিত করে জানান, রোববার (২০ জানুয়ারি) ধর্ষণের শিকার ওই নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতারকৃত আজমির হোসেন হাতিয়ার বুড়িচর ইউনিয়নের বড়দেউল গ্রামের হাসান উদ্দিনের ছেলে।

 

স্থানীয় ও মামলা সূত্র জানা যায়, ওই নারী (৩৮) স্বামী-সংসারে থাকাবস্থায় বিবাহিত আজমিরের সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। এর আলোকে গত ৩১ ডিসেম্বর আজমির তাকে ধর্ষণ করেন। এ ঘটনা জানাজানির পর ওই নারীর স্বামী তাকে তালাক দেন। পরবর্তীতে তিনি আজমিরকে বিয়ের জন্য চাপ দেন। এতে আজমির রাজি না হওয়ায় গত ২৭ জানুয়ারি নোয়াখালীর আদালতে একটি ধর্ষণ মামলা করেন ওই নারী। বিচারক মামলাটি রজু করে ব্যবস্থা নিতে হাতিয়া থানার ওসিকে নির্দেশ প্রদান করেন।

অপর দিকে গ্রেফতারের পর আজমির হোসেন জানান, তিনি ওই নারীকে কয়েকদিন আগে বিয়ে করেছেন। এখন বিষয়টি আদালতে মীমাংসা করতে তারা উভয়ে রাজি আছেন।

Sharing is caring!