Sharing is caring!

চট্টগ্রামে আফগানিস্তান-বাংলাদেশ দলের সিরিজ চলতেছে। এই সিরিজে আফগানিস্তান দলের জার্সির বুকেও বড় করে বাংলায় লেখা ‘মোনার্ক মার্ট’। অনেকের মনে প্রশ্ন জাগতে পারে আফগানিস্তানের জার্সিতে বাংলা লেখা কেন? প্রশ্নের উত্তর খোঁজতেই বিষয়টি নিয়ে আরও গভীরে গিয়ে জানা গেলো অন্য রকম এক তথ্য।

ক্রিকেটারদের পৃষ্ঠপোষকতায় ক্রিকেটারাই এগিয়ে আসালো। তবে সেটির উদাহরণ হিসেবে শুধু মোনার্ক মার্টের নাম উল্লেখ করাটা বোধ হয় ভুলই হবে। খুঁজলে এ রকম হয়তো আরও অনেকই পাওয়া যাবে। একটি উদাহরণ তো আছে চোখের সামনেই!

আফগানিস্তান দলের জার্সির দিকে যদি আরেকবার ভালো করে তাকান, দেখবেন জার্সির এক হাতে যেমন ‘মোনার্ক মার্ট’ লেখা, আরেক হাতে লেখা ‘এমএন ৭’। ‘এমএন’ হচ্ছে আফগানিস্তান ওয়ানডে দলের অধিনায়ক মোহাম্মদ নবীর নামের সংক্ষিপ্ত রূপ, আর ‘৭’ তাঁর জার্সির নম্বর।

হ্যাঁ, ঠিকই ধরেছেন। ‘এমএন ৭’ নামে আফগানিস্তানের পোশাক প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানটি মোহাম্মদ নবীর। তাঁর এই প্রতিষ্ঠানই আফগানিস্তান দলের কিট স্পনসর। আর সে কারণেই আফগানদের জার্সিতে ‘এমএন ৭’-এর লোগো।

ক্রিকেটার নবীর প্রতিষ্ঠান ক্রিকেটের সঙ্গে আছে শুধু আফগানিস্তান দলের জার্সিতে উপস্থিত থেকেই নয়, গত বছর মার্চে আবুধাবিতে অনুষ্ঠিত আফগানিস্তান-জিম্বাবুয়ে সিরিজেরও সহযোগী পৃষ্ঠপোষক ছিল তারা। আফগানিস্তানের ক্রিকেটকে প্রতিষ্ঠানটি পৃষ্ঠপোষকতা করছে আরও অনেকভাবেই।

আফগান ক্রিকেটারদের পৃষ্ঠপোষকতা একটি অংশ হিসেবে তাদের জার্সিতে বাংলায় লেখা মোনক মার্ট অনলাইন শপিংয়ের চেয়ারম্যান বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান, সঙ্গে অন্য অংশীদারেরাও আছেন।

Sharing is caring!