Sharing is caring!

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ

 

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার সোনাপুর ইউনিয়ন থেকে নূর জাহান বেগম (৩৬) নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পারিবারিক কলহের জেরে স্বামীর মারধরের পর ক্ষোভে বিষ প্রাণে ওই গৃহবধু মারা গেছেন বলে ধারণা করছে পুলিশ।

 

শনিবার দুপুর ১টার দিকে হীরাপুর গ্রামের জহির উদ্দিন হাজি বাড়ি থেকে লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত নূর জাহান বেগম ওই বাড়ির কামাল উদ্দিনের স্ত্রী। তিন ছেলের জননী তিনি।

 

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নূর জাহানের সংসারে তিন ছেলে সন্তান থাকার পরও নিজেদের বাড়িতে এক নারীকে দ্বিতীয় বিয়ে করে কামাল উদ্দিন। স্থানীয় একটি গাছ কাটার মিলে কাজ করে কামাল। তার দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে পারিবারিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে প্রথম স্ত্রী নূর জাহানের সাথে প্রায় বাকবির্তক হতো কামালের। এর জের ধরে নূর জাহানকে একাধিকবার মারধর করে কামাল। শুক্রবার দিবাগত রাতে তাদের মধ্যে পুনঃরায় জগড়ার এক পর্যায়ে নূর জাহানকে আবারও মারধর করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম করে কামাল। শনিবার দুপুরে নিজ ঘরে ভিতরে গোংরানির শব্দ পেয়ে বাড়ির লোকজন এগিয়ে গিয়ে তাকে নিচে পড়ে থাকতে দেখে দ্রুত উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পথে মারা যায় নূর জাহান।

 

সোনাইমুড়ী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) বিমল দাস বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে তাদের ঘর থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে বিষপ্রাণে ওই নারী আত্মহত্যা করেছেন। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হবে।

 

তিনি আরও জানান, স্থানীয়দের তথ্যমতে দ্বিতীয় বিয়েকে কেন্দ্র করে সবশেষ শুক্রবার রাতে নূর জাহানকে মারধর করে স্বামী কামাল উদ্দিন। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহৃ রয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়না তদন্ত প্রতিবেদন ও নিহতের বাবার পরিবারের সদস্যদের অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Sharing is caring!