চীনা ছয় ফুটবলার যে কারণে নিষিদ্ধ

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
আপডেটঃ : সোমবার, ৮ জুন, ২০২০

ডেস্ক:

করোনাভাইরাসের প্রকোপ কমায় লকডাউন শিথিল করেছে চীন সরকার। তবে সবার জন্য বেশ কিছু বিধি নিষেধ ঠিকই রাখা হয়েছে। এরইমধ্যে তা অমান্য করে দেশটির অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ৬ ফুটবলার পার্টি যেয়ে মদ পান করেন। যে কারণে তারা ৬ মাসের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন।

চীনারা অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে নিয়ে এসেছে করোনাকে। তবুও সতর্কতার স্বার্থে দেশটিতে এখনও কারফিউ জারি রয়েছে। কিন্তু এ কারফিউ অমান্য করে মধ্যরাতে মদের পার্টি করতে চলে গিয়েছিলেন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ছয় ফুটবলার। ব্যাপারটি ভালোভাবে নেয়নি চাইনিজ ফুটবল ফেডারেশন (সিএফএ)। কারফিউ ভঙ্গ করে মদের পার্টি করতে যাওয়ায়, সঙ্গে সঙ্গে সেই ছয় ফুটবলারকে ছয় মাসের জন্য নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে। তবে কারো নাম প্রকাশ করেনি সংস্থাটি।

শিনহুয়া নিউজ এজেন্সি বলেছে, গত ১৭ মে থেকে সাংহাইতে অনূর্ধ্ব-১৯ ফুটবল দলের ক্যাম্প শুরু করেছিল সিএফএ। ৩৫ জন ফুটবলারকে নিয়ে শুরু হওয়া সেই ক্যাম্প শেষ হয়েছে শনিবার (৬ জুন)। আর ক্যাম্প শেষেই ছয় ফুটবলারকে নিষিদ্ধ করার খবর জানিয়েছেন ফেডারেশন। তবে তাদের নিষিদ্ধ করা হয়েছে ৩০ মে। ফলে তাদের শাস্তির মেয়াদ শেষ হবে ৩০ নভেম্বর। এদিকে সিএফএ বলছে, ‘মহামারির এই সময়ে নির্দেশনা অমান্য করে গুরুতর অপরাধ করেছে ফুটবলাররা। যা পুরো দলের মধ্যে একটা নেতিবাচক প্রভাব ফেলেছে।’

চীন অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হেড কোচ চেং ইয়াওডং জানিয়েছেন, এটা ভবিষ্যতের জন্য একটি শিক্ষা, ‘ওরা সবাই বর্তমান পরিস্থিতির গুরুত্বটা বুঝতে পেরেছে। ছয় খেলোয়াড়কে হারানো অবশ্যই আমাদের দলের জন্য বড় ক্ষতি। তবে এসব খেলোয়াড়দের ভবিষ্যতের জন্য এটি বড় একটা শিক্ষা হয়ে থাকবে।’

পরবর্তী মৌসুমের অলিম্পিকের জন্য ফুটবলারদের প্রস্তুত করতে চাইনিজ তৃতীয় বিভাগ ফুটবলে এই খেলোয়াড়দের সুযোগ করে দিবে সিএফএ। আর সে লক্ষ্যে এই ক্যাম্প করা হয়েছিল।


এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১