Sharing is caring!

প্রতিবেদক, নোয়ায়াখালী:

 

নোয়াখালী দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার নিন্মাঞ্চল ঘূর্ণিঝড় ইয়াস ও পূর্নিমার প্রভাবে অস্বাভাবিক জোয়ারের পানিতে প্লাবিত হয়েছে । এছাড়াও রাতের
প্লবিত হয়েছে নিঝুমদ্বীপ ইউনিয়নের কয়েকটি গ্রাম জোয়ারে পানিতে।

ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে হাতিয়ার চারপাশের নদীতে বৃদ্ধি পেয়েছে স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে ৩-৪ফুট পানি। এতে করে উপজেলার চরঈশ্বর ইউনিয়নের ১ ও ২নং ওয়ার্ডের তালুকদার গ্রামের বেড়ীর বাহিরে থাকা অংশ সম্পূর্ন জোয়ারের পানিতে তলিয়ে যায়।

এদিকে নিঝুমদ্বীপের বেড়ীবাঁধ না থাকায় অস্বাভাবিক জোয়ারে তলিয়ে গেছে কয়েকটি গ্রাম । এর মধ্যে মোল্লা গ্রাম, ইসলামপুর গ্রামসহ কয়েকটি গ্রাম ৩-৪ফুট পানির নিচে তলিয়ে গেছে বলে জানান হাতিয়া সিপিপি’র বদিউল আলম। বদিউল আলম আরো জানান, রাতে কয়েকটি আশ্রয় কেন্দ্রে নিঝুমদ্বীপসহ নিন্মাঞ্চলের ৫ শতাধিক মানুষ আশ্রয় নিয়েছে।

এ ব্যাপারে হাতিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ইমরান হোসেন জানান, ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাব ও পুর্ণিমার প্রভাব এক হয়ে জোয়ারের পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। দুর্গত মানুষের আশ্রয়ের জন্যে ১৮১টি আশ্রায়ন প্রস্তুত রাখা হয়েছে। দুর্গত মানুষের জন্যে ইউনিয়ন প্রতি ২লক্ষ ৫০হাজার টাকার শুকনো খাওয়ার মওজুদ রাখা হয়েছে।

Sharing is caring!