Sharing is caring!

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ

২৫০ শয্যা বিশিষ্ট নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল থেকে ১দিন বয়সী এক নবজাতক (ছেলে) চুরির ঘটনা ঘটেছে। ঘটনায় জড়িত থাকা সন্দেহে তুহিন হোসেন নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে এ ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘটনায় চুরি হওয়া শিশুর বড় ভাই বাদী হয়ে সুধারাম মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। তবে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত (বৃহস্পতিবার দুপুর ২টা) নবজাতককে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত সোমবার সদর উপজেলার কাদির হানিফ ইউনিয়নের বাসিন্দা আব্দুল মালেকের সন্তান সম্ভবা স্ত্রী জুলেখা বেগমকে (৩৫) নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। মঙ্গলবার রাতে গাইনি ওয়ার্ডে অস্ত্রপচারের এক পুত্র সন্তানের জন্ম দেন তিনি। বুধবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে বাচ্চাকে রেখে হাসপাতালের টয়লেটে যান জুলেখা। একটু পর ফিরে এসে দেখেন বিছানায় তার ছেলে নেই।

নিখোঁজ নবজাতকের স্বজনরা জানান, হাসপাতালের সিসি টিভি ফুটেজে দেখা ওই নারী আজ সকাল থেকে ওই কক্ষে ঘুরাঘুরি করছিল। সুযোগ পেয়ে বাচ্চা নিয়ে পালিয়ে গেছে সে।

হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) সৈয়দ মোহাম্মদ আবদুল আজিম জানান, সিসি টিভি ফুটেজ দেখে নবজাতক চুরি করা ওই নারীকে শনাক্ত করার চেষ্টা চলছে।

জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অপরাধ) দীপক জ্যোতি খীসা জানান, চুরি হওয়া নবজাতককে উদ্ধারের জন্য বুধবার রাত থেকে পুলিশ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালাচ্ছে। এ ঘটনায় জড়িত থাকা সন্দেহে সিসি টিভি ফুটেজ দেখে ১জনকে আটক করা হয়েছে, তাকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। শিশু চুরির ঘটনায় তার বড় ভাই বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

 

Sharing is caring!