শিরোনাম:
উন্মুক্ত পার্কের দাবীতে মানববন্ধন-সমাবেশ ও স্মারকলিপি প্রদান বাড়ির সীমানায় ময়লা ফেলার বিরোধে প্রাণ গেল বৃদ্ধের বিএনপিকে উপজেলা নির্বাচনে না আসলে ভুলের খেসারত দিতে হবে: সেতুমন্ত্রী কাদের ভাসানচর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বিস্ফোরণ, মৃতের সংখ্যা বেড়ে-৩ নোয়াখালীতে ইনডেক্স ল্যাবরেটরীজ (আয়ু) সায়েন্টিফিক সেমিনার অনুষ্ঠিত যে ভাবে হাফেজ হলেন দুই ভাই, ৭ মাসে হাফেজ হলেন ১১ বছর বয়সী মাহির মৃত্যু দন্ডপ্রাপ্ত আসামি ঢাকা থেকে গ্রেপ্তার মফিজ উল্লাহ স্মৃতি মেধা বৃত্তি পরীক্ষার শিক্ষার্থীদের মাঝে সনদ ও নগদ অর্থ বিতরন ডাকাতি প্রস্তুতিকালে সুবর্ণচরে অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৯ ডাকাত ভোটের রাতে গৃহবধূকে দলবদ্ধ ধর্ষণ, গ্রেপ্তার যাবজ্জীব সাজাপ্রাপ্ত আসামি

‘এক কলসি পানির দাম কত’

Avatar
newsdesk2
আপডেটঃ : রবিবার, ৫ জুলাই, ২০২০

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ
করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় একজন কমিউনিটি মেডিকেল অফিসারের তাঁর নিজস্ব ফেসবুক আইডিতে গত ৩জুলাই মানবিক আবেদন ও আবেগময়ী স্ট্যাটাস দেয়ার পর প্রশাসনসহ সচেতন মহলে টনক নড়েছে। 
উপজলার রামপুর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান কেন্দ্রে দায়িত্ব পালনকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার ডা. কাউছার জাহান মনি করোনা আক্রান্ত রোগীদের সেবা দিতে গিয়ে তিনি নিজেই এখন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বাড়ীতে চিকিৎসাধিন আছেন।
তার বাড়ীতে খাবার পানি সংগ্রহে নিয়োজিত গৃহপরিচারিকা এখন আর তার ঘরে (ডা. মনি) পানি দিতে আসে না। তীব্র পানীয় জলের সংকটে পড়েন ওই চিকিৎসক পরিবার। কারণ প্রতিবেশিরা চিকিৎসক মনির বাড়ীতে খাবার পানি সরবরাহকারী নারীকে পানি সরবরাহ করতে নিষেধ করেছেন। প্রতিবেশিরা বলছেন, তারাও হয়ত করোনা আক্রান্ত হবেন।
কিংকর্তব্যবিমুঢ় ও অসহায় হয়ে পড়ে আবেগগণ স্ট্যাটাস ডা. মনি তার ফেসবুক আইডি তুলে ধরেন। পাঠকদের উদ্দেশ্যে ওই স্ট্যাটাসটি তুলো ধরা হলো-
“এক কলসি পানির দাম কত…..!!!
এই মুহুর্তে মেলা দামি জিনিস এই এক কলসি বিশুদ্ধ খাবার পানি। পানি শেষ হতে লাগলে টেনশানে মাথা খারাপ হয়ে যায় পানি এনে দেবে কে??? আমার কাজের সাহায্যকারিনী প্রতিদিন পাশের বাড়ি থেকে পানি এনেদিতো এখন তাকে ফোনদিতে দিতেও ধরেনা। বহুবার ফোন দেওয়ার পর সে ফোনধরে কাঁদো কাঁদো হয়ে বলে আপা সন্ধ্যায় লুকায়া পানি এনে বাসার নিচে রেখে যাবো। আমাদের পানি এনে দেয় বলে তাকে নাকি বাড়ির লোক আর পাড়াপ্রতিবেশি হেনস্তা করছে আর মারধরের হুমকিধামকি দিচ্ছে…. ওফ… কি ভয়ানক অবস্থা। প্রিয় ভাই বোন, পাড়াপ্রতিবেশি আমি কভিড-১৯ কে ভালোবেসে নিমন্ত্রণ জানিয়ে শরীরে নিয়ে আসিনি, আপনাদেরই কেউ অসুস্থ অবস্থায় সেবা নিতে এসে আমাকে দিয়ে গেসেন। অফিসটাইম শেষ হওয়ার পরও, পিপিই খুলে ফেলার পরও আবদার করে আপনারা পাড়াপ্রতিবেশিরাই আসেন সেবা নিতে। হাজারবার বলার পরও মাস্ক না পরে কোন স্বাস্থ্যবিধি না মেনে দাঁত কেলাতে কেলাতে আল্লাহর দোহায় দিয়ে আপনারাই রোগে শোকে আসেন। কেউ বলতে পারবেন কোনদিন কাউকে ফিরিয়ে দিয়েছি????? শোনেন এইদুনিয়ায় সবকিছু ফেরত আসে। আল্লাহর দয়ায় যদি সুস্থ হয়ে আবার ফিরে আসি আমি কিন্তু আবারও আপনাদের সেবা দেবো সেটা সময়ে অসময়ে যখনই হোকনা কেন। পরিশেষে এভাবে বলার জন্য কেউ যদি কষ্ট পান মাফ করে দিয়েন। কোনও অভিযোগও নেই শুধু এইটুকু বলি কষ্ট পেয়েছি ভীষণ।”
স্ট্যাটাসটি নজরে পড়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের কাছের ব্যাক্তি সাবেক ছাত্রলীগ নেতা নুরুল করিম জুয়েলের। তিনি আমেরিকায় অবস্থান করলেও তার ছোট ভাইকে দিয়ে ডাঃ কাউছার জাহান মনির বাড়ীতে শনিবার বিভিন্ন ধরনের পানীয় ও ফলমুল পাঠিয়েছেন। একই সময় কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফয়সাল আহমেদ, সহকারী কমিশনার (ভূমি) সুপ্রভাত চাকমা, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা ডাঃ মোহাম্মদ সেলিম, কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আরিফুর রহমান, ওসি তদন্ত রবিউল হক ছুটে যান ডাঃ কাউছার জাহান মনির বাড়ীতে। তারা এ সময় তার জন্য বিভিন্ন ধরনের পানীয়, ফলমুল তার হাতে তুলে দিয়ে তার স্বাস্থ্যসহ সার্বিক বিষয়ে খোজ খবর নিয়েছেন।


এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯