বেগমগঞ্জে নিখোঁজ নারীর লাশ মিলল বিলে

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
আপডেটঃ : বুধবার, ২২ জুলাই, ২০২০

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ

 

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার নরোত্তমপুর ইউনিয়ন থেকে পরানী বেগম (৪০) নামের এক নারীর অর্ধগলিত লাশ একটি বিল থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। লাশটি পঁচে যাওয়ার কারনে শরীরের কোন আঘাতের চিহ্ন আছে কিনা তা শনাক্ত করা যায়নি। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে নরোত্তমপুর গ্রামের একটি বিল থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত পরানী বেগম (৪০) ওই এলাকার আক্কাস আলীর স্ত্রী।

জানা গেছে, স্বামী পরিত্যক্তা পরানী বেগম গত ১২জুলাই রাতে খাবার খেয়ে পরিবারের লোকজনের সঙ্গে ঘুমিয়ে পড়েন। রাতের কোন এক সময় ঘর থেকে বের হয়ে তিনি নিখোঁজ হন। সকালে পরিবারের লোকজন সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ করে তার সন্ধান না পেয়ে ১৩জুলাই তার মেয়ে মুক্তা বেগম বেগমঞ্জ মডেল থানায় একটি নিখোঁজ জিডি করেন।

পুলিশ জানায়, বুধবার সকালে স্থানীয় ইউছুফ নামের এক কৃষক গ্রামের একটি বিলে গরুর জন্য ঘাস কাটতে যান। এসময় পঁচা দুর্ঘন্ধ পেয়ে সামনে এগিয়ে গিয়ে ঘাসের ফাঁকে পরানী বেগমের মৃত দেহ ভাসতে দেখে থানায় ও তার পরিবারে খবর দেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পৌঁছে লাশ উদ্ধার করে।

এলাকাবাসী বলেন, নিহত পরানী বেগম সুদ ও দাদন ব্যবসা করতেন। বিভিন্ন লোকের সাথে তার টাকা লেনদেন ছিল। ধারনা করা হচ্ছে টাকা লেনদেন নিয়ে দ্বন্দের কারনে তিনি খুন হতে পারেন।

বেগমগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুনুর রশিদ চৌধুরী জানান, পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে। প্রাথমিকভাবে এটা একটি হত্যাকান্ড বলে মনে হচ্ছে। ঘটনায় নিহতের মেয়ে বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

নোয়াখালী পুলিশ সুপার মো: আলমগীর হোসেন বলেন, ওই নারী এলাকায় সুদের ব্যবসা করতেন। ঘটনাটি নিয়ে পুলিশ কাজ করছে। খুব শীঘ্রই এ মৃত্যুর রহস্য উদঘাটন করার জন্য পুলিশের একাধিক টিম মাঠে নেমেছেন। ঘনার সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনা হবে।


এই ক্যাটাগরির আরো নিউজ

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯