Sharing is caring!

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

 

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে নোয়াখালীতে বিভিন্ন কর্মসুচি পালন করা হয়েছে।

সকাল সাড়ে ৯টায় জেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর স¥তিস্থম্ভে নোয়াখালী জেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম চৌধুরী এমপির ফুল দিয়ে শ্রদ্বা জানান।

এরপর উপজেলা আওয়ামীলীগের পক্ষে সভাপতি এড. শিহাব উদ্দিন শাহিনও সাধারন সম্পাদক আতাউর রহমান নাছির, শহর আওয়ামীলীগের পক্ষে সভাপতি আবদুল ওয়াদুদ পিন্টু, জেলা যুবলীগের পক্ষে আহবায়ক বাবু ইমন ভট্ট ও যুগ্ন আহবায়ক একরামুল হক বিপ্লব।

এছাড়াও নোয়াখালী জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে জেলা প্রশাসক কার্যালয় অভিমুখে মুজিব চত্তরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্বা জানান জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ খুরশীদ আলম খান। এসময় উপস্থিত ছিলেন একরামুল করিম চৌধুরী এমপি, পুলিশ সুপার মোঃ আলমগীর হোসেন।

সদর উপজেলার পক্ষ থেকে ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: জাকরিয়া, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নুর আলম ছিদ্দিকী রাজু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পন করেন।

পরে জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে এক আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। এতে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ খুরশীদ আলম খানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন নোয়াখালী জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম চৌধুরী এমপি। বিশেষ অতিথি হিসেবে নোবিপ্রবির ভিসি ড. দিদারুল আলম, নোয়াখালী পুলিশ সুপার মোঃ আলমগীর হোসেন,জেলা পরিষদের নির্বাহী ড.মাহে আলম বক্তব্য রাখেন।

এই দিকে নোয়াখালী পৌরসভার উদ্যেগে ১৫ই আগষ্ট শনিবার সকালে পৌর ভবনের বঙ্গবন্ধুর প্রতিচ্ছবিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্বা জানান পৌর মেয়র ও নোয়াখালী শহর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক শহিদ উল্যাহ খান সোহেল। এসময় বঙ্গবন্ধুসহ পরিবারের অন্যান্য শহিদদের জন্য দোয়া করা হয়।

দুপুরে পৌরভবনে মরহুম বীরমুক্তিযোদ্ধা রবিউল হোসেন কচি অডিটোরিয়ামে এক আলোচনা ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়। মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেলের উদ্যোগে দোয়া মাহফিলে সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নুর আলম সিদ্দিকী রাজু, পৌর কাউন্সিলরগন, কর্মকর্তাকর্মচারী সহ সাধারন মানুষ উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা ও দোয়া শেষে সকলের মাঝে খাবার বিতরন করা হয়।

এরপর দুপুর আড়াইটা পৌর সভার উদ্যোগে লক্ষিনারায়নপুর এলাকার কামাল কমপ্লেক্স মাদ্রাসায় বঙ্গবন্ধুসহ ১৫ই আগষ্ট শাহাদাৎ বরণকারী পরিবারের সদস্যদের জন্য দোয়া ও মাদ্রসা ছাত্রদের দুপুরের খাবার দেয়া হয়। এসময় ছাত্রদের সাথে দুপুরের খাবার খান মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেল।

Sharing is caring!