Sharing is caring!

ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসনের প্রেক্ষাপটে বৈশ্বিক নিরাপত্তার ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশকে নিয়ে ‘একযোগে’ কাজ করতে চায় বলে জানিয়েছেন মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের রাজনীতি বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি ভিক্টোরিয়া নুল্যান্ড। তিনি বলেন, “বৈশ্বিক নিরাপত্তার ক্ষেত্রে, বিশেষ করে ইউক্রেইনে রাশিয়ার আক্রমণের ফলে যখন গণতন্ত্র ও আন্তর্জাতিক আইন হুমকির মুখে, তখন বাংলাদেশকে নিয়ে আমরা একসাথে কাজ করতে চাই।”

রোববার (২০ মার্চ) দুই দেশের অংশীদারিত্ব সংলাপের সূচনা বক্তব্যে তিনি এই কথা বলেন।বৈঠকের সূচনা বক্তব্যে নুল্যান্ড বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের আরও অনেক কোম্পানি বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে আগ্রহী। তবে বিনিয়োগের পরিবেশ ভালো করতে বাংলাদেশের ‘আরও অনেক কিছু’ করা দরকার।

এসময় করোনা মোকাবিলা ও টিকাদান কর্মসূচিতে বাংলাদেশের ভূয়সী প্রশংসা করেন তিনি। এর আগে বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্র অষ্টম অংশীদারি সংলাপ রোববার (২০ মার্চ) রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় বেলা সাড়ে ১১টায় শুরু হয়। এতে বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেন পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন, যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে দেশটির আন্ডার সেক্রেটারি ভিক্টোরিয়া নুল্যান্ড।

এই আলোচনায় পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। আর ভিক্টোরিয়া নুল্যান্ড নেতৃত্ব দিচ্ছেন মার্কিন প্রতিনিধিদলের। এমন এক সময়ে এই সংলাপ হচ্ছে, যখন ইউক্রেইনে রাশিয়ার আগ্রাসন ঘিরে নতুন এক সঙ্কট তৈরি হয়েছে বিশ্বে। আর এই সঙ্কটে যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের সঙ্গে রাশিয়ার পাল্টাপাল্টি অবস্থান নতুন করে কূটনৈতিক মেরুকরণের দিকে ঠেলে দিচ্ছে বেশিরভাগ দেশকে।

Sharing is caring!